৩রা ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, শনিবার, সকাল ৭:৪১
নোটিশ :
Wellcome to our website...

শিক্ষক সমিতির নির্বাচন: সভাপতি পদে মিল্টন বিশ্বাস

রিপোর্টার
শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ০৭:৪১ পূর্বাহ্ন

জবি প্রতিনিধি :

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় (জবি) শিক্ষক সমিতির কার্যনির্বাহী পরিষদ নির্বাচন আগামী ২৮ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। এই নির্বাচনকে ঘিরে চলছে ব্যাপক প্রচার প্রচারণা । বিভাগে বিভাগে গিয়ে কথা বলছেন শিক্ষকরা। বরাবরের মত এবারো ক্ষমতাসীন দলের শিক্ষকরা দুটি প্যানেল দিয়েছেন। বৃহস্পতিবার প্রধান নির্বাচন কমিশনার ড. মোঃ মনিরুজ্জামান খন্দকার স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে দেখা যায়, ১৫ সদস্যবিশিষ্ট কার্যনির্বাহী কমিটি গঠনের লক্ষ্যে প্রত্যেক পদে ২জন করে অংশগ্রহণ করলেও সভাপতি পদে ৩ জন শিক্ষক অংশগ্রহণ করেছেন। এবারের নির্বাচনে কোন প্যানেল ছাড়াই সভাপতি পদে অংশগ্রহণ করছেন ‘জয় বাংলা শিক্ষক সমাজে’র আহ্বায়ক ও বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ড. মিল্টন বিশ্বাস। এদিকে ক্ষমতাসীন নীল দলের দুই প্যানেল থেকে সভাপতি পদে লড়ছেন পদার্থবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ড. মোঃ নূরে আলম আব্দুল্লাহ এবং একাউন্টিং এবং ইনফরমেশন সিস্টেম বিভাগের অধ্যাপক ড. মোঃ শওকত জাহাঙ্গীর।
এবার নির্বাচনে ৬ টি পদে মোট ৩১ জন পদ প্রত্যাশী শিক্ষক লড়াই করছেন এবং মোট ভোটার ৬৭৮ জন। এদের মধ্যে থেকে ১৫ জন নির্বাচিত হবেন। সদস্যপদে ১০ ছাড়া বাকি ৫ পদে একজন করে নির্বাচিত হবেন । নির্বাচনে সভাপতি পদে ৩ জন, সহ-সভাপতি পদে ২জন, সাধারণ সম্পাদক পদে ২ জন, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক পদে ২জন , কোষাধ্যক্ষ পদে ২ জন এবং সদস্য পদে ২০ জন শিক্ষক নির্বাচনে অংশগ্রহণ করছেন ।

বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ড. মিল্টন বিশ্বাস এককভাবে নির্বাচনে অংশগ্রহণের বিষয়টা নিয়ে শিক্ষকদের মধ্যে ব্যাপক আলোচনাও হচ্ছে। ক্ষমতাসীন দলের শিক্ষকরা যখন তাদের মতাদর্শজনিত এবং সুবিধাবাদিতার কারণে বিভক্ত হয়ে প্যানেল দিয়ে নির্বাচন করছেন তখনই ‘জয় বাংলা শিক্ষক সমাজে’র আত্মপ্রকাশ ঘটে। এ নিয়ে অনেক শিক্ষকদের মনে ভীতির সঞ্চার হয়। নামপ্রকাশ করার না শর্তে বেশ কয়েকজন সিনিয়র শিক্ষক মনে করেন, যখন ক্ষমতাসীন নীল দলের শিক্ষকরা নিজের মধ্যে দলাদলি শুরু করেছে তখন একটা বিশুদ্ধ সংগঠনের উত্থান হয়ে থাকে।

জানা যায়, সভাপতি পদে প্যানেল ছাড়া লড়াইকারী বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ড. মিল্টন বিশ্বাস একাধারে কলামিস্ট, প্রাবন্ধিক, সাহিত্য-সমালোচক, কবি এবং বর্তমানে বিশ্ববিদ্যালয়ের জনসংযোগ, তথ্য ও প্রকাশনা দপ্তরের পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। ২০০০ সালে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগে অধ্যাপনার পর বর্তমানে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে বাংলা বিভাগের অধ্যাপক তিনি।পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে মোট ২০ বছরের অধ্যাপনার অভিজ্ঞতা তাঁর। তিনি বাংলাদেশ প্রগতিশীল কলামিস্ট ফোরামের সদস্যসচিব। উল্লেখ্য, এই সংগঠনের আহ্বায়ক হলেন অধ্যাপক ড. মীজানুর রহমান, যিনি জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের অভিভাবক। মিল্টন বিশ্বাস ‘শালোম ফাউন্ডেশন’ নামে একটি মানবাধিকার সংগঠনের চেয়ারম্যান এবং বাংলা একাডেমির জীবন সদস্য।

এ বিষয়ে সভাপতি পদ প্রার্থী ড. মিল্টন বিশ্বাস বলেন, আমরা বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে ধারণ করে এবং বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকদের বিপদ-আপদে এবং শিক্ষকদের অধিকার আদায়ের লক্ষ্যে পাশে থাকতে চাই। আমরা আওয়ামী লীগের চিন্তাধারা নিয়ে কাজ করব এবং পরামর্শ দেব। ইতোমধ্যে আমরা ‘‘জয় বাংলা শিক্ষক সমাজ’’ নামে শিক্ষক সমাজ গঠন করেছি। এখানে যেসকল শিক্ষক আছেন সবাই বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে ধারণ করেন। এখানে অন্য মতাদর্শের কোন শিক্ষক নেই।
তিনি আরো বলেন, এবারের নির্বাচনে শুধু সভাপতি পদে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করছি। আগামী বছর ‘‘জয় বাংলা শিক্ষক সমাজে’’র পক্ষ থেকে পুরো প্যানেল দিয়ে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করব।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ
এক ক্লিকে বিভাগের খবর